আরএমপি নিউজ: রাজশাহী কলেজের (আরসি) বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থীর অংশগ্রহণে ‘ইয়ূথ সার্কেল’ ও বিতর্ক সংগঠন‘ মিরর ডিবেটিং ক্লাব’র আয়োজনে তিন দিনব্যাপী ‘বিতর্ক উৎসব’ শুরু হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে আনুষ্ঠানিকভাবে বিতর্ক উৎসবের উদ্বোধন করেন কলেজের শিক্ষক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ও ইংরেজি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ড. পিযস কান্তি ফৌজদার। এসময় মিরর ডিবেটিং ক্লাবের উপদেষ্টা ও ইংরেজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. সৌম্যসাথী ভৌমিক, ইয়ূথ সার্কিলের উপদেষ্টা ও ইতিহাস বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আনিসুজ্জামান মানিক, অর্থনীতি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ও ইয়ূথ সাকেলের উপদেষ্টা মো. মিজানুল ইসলাম প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

এর আগে দুপুর সাড়ে ১২টায় ৩ দিনব্যাপী এ বিতর্ক উৎসব উপলক্ষ্যে বর্ণাঢ্য এক র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিতে কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মুহা. হবিবুর রহমান, উপাধ্যক্ষ অধ্যাপক আল ফারুক চৌধরীসহ বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক, মিরর ডিবেটিং ক্লাবের সদস্য, বিভিন্ন বিভাগের বিতার্কিক, ইয়ূথ সার্কেলের সদস্যবৃন্দ এবং সিসিডি বাংলাদেশের কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। র‌্যালিটি কলেজের ইংরেজি বিভাগের সামনে থেকে শুরু হয়ে কলেজের প্র্রধান প্রধান ভবন ও সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে পূর্বের স্থানে গিয়ে শেষ হয়।

পরে দুপুর আড়াইটা থেকে কলেজের ইংরেজি বিভাগের কনফারেন্স রুমে বিভিন্ন বিভাগের প্রায় ৪৮ জন বিতার্কিকের অংশগ্রহণে পার্লামেন্টারি ডিবেটের নিয়ম-কানুন সম্পর্কে জ্ঞানপ্রদান করতে কর্মশালার আয়োজন করা হয়। কর্মশালায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বিতর্ক সংগঠন ‘গোল্ড’ এর প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মুনাসিব ফয়সাল তন্ময় ও রাজশাহী কলেজের বিতর্ক সংগঠন মিরর ডিবেটিং ক্লাবের সাবেক সভাপতি তরিকুল ইসলাম তারেক অংশগ্রহণকারী বিতার্কিকদের প্রশিক্ষণ দেন।
তিন দিনব্যাপী এ বিতর্ক অনুষ্ঠানটির সার্বিক সহযোগিতায় রয়েছে ‘ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ’ ও ‘সিসিডি বাংলাদেশ’। আজ বুধবার সকালে ইংরেজি বিভাগের বিভিন্ন ক্লাসরুমে শুরু হবে বিতর্ক প্রতিযোগিতার প্রথম রাউন্ড। দিনব্যাপী দ্বিতীয় রাউন্ড ও সেমি ফাইনাল অনুষ্ঠিত হবে। আগামীকাল বৃহস্পতিবার বিকালে অনুষ্ঠিত হবে ফাইনাল বিতর্ক উৎসব। এ দিন বিকালে সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে। কলেজের অধ্যক্ষ ড. হবিবুর রহমানের সভাপতিত্বে উৎসবের সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন রাজশাহী-২ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা।
উল্লেখ্য, রাজশাহী কলেজের শিক্ষার্থীদের মাঝে ‘শান্তি’ ও ‘সহনশীলনতা’র পরিবেশ রক্ষায় ধর্মীয় উগ্রবাদ নির্মুলে বিভিন্ন সচেতনতামূলক কর্মকা-ের অংশ হিসেবে মূলত এ বিতর্ক প্রতিযোগিতাটি অনুষ্ঠিত হচ্ছে। যেখানে কলেজটির বিভিন্ন বিভাগের ১৬টি দল অংশগ্রহণ করছে।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের অর্থায়নে ‘ঊহমধমরহম ণড়ঁঃয চবড়ঢ়ষব ধমধরহংঃ ঠরড়ষবহঃ ঊীঃৎবসরংস ধহফ জবষরমরড়ঁং গরষরঃধহপু’ শীর্ষক পাইলট প্রজেক্টের আওতায় মহানগরীর অভ্যন্তরীণ রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী কলেজ, বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় ও নর্থ বেঙ্গল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি’র শিক্ষার্থীদের মাঝে উগ্র ও জঙ্গিবাদবিরোধী বিভিন্ন সচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। এই কর্মসূচি চলতি বছরের ডিসেম্বর পর্যন্ত চলবে। তারই অংশ হিসেবে রাজশাহী কলেজের শিক্ষার্থীদের মাঝে সচেতনতামূলক কর্মকা-ের অংশ হিসেবে এই ‘বিতর্ক উৎসব’ অনুষ্ঠিত হচ্ছে।