দীর্ঘদিন পর ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে ফের বৈঠক শুরু হতে চলেছে। জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের আসন্ন বার্ষিক বৈঠকের অবসরে নিউইয়র্কে এই বৈঠক হবে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ ও পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহ মাহমুদ কুরেশির মধ্যে। বৈঠকের দিনক্ষণ দুই দেশ আলোচনার মাধ্যমে ঠিক করবে।

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র রবীশ কুমার বৃহস্পতিবার মন্ত্রণালয়ের সাপ্তাহিক এক বৈঠকে এই সংবাদ সম্মেলনের কথা জানান। তবে এই বৈঠককে ভারত বন্ধ থাকা দ্বিপক্ষীয় আলোচনার সূত্রপাত বলতে রাজি নয়। রবীশ কুমার বলেছেন, এটা স্রেফ একটা বৈঠক হবে। এই বৈঠককে মোটেই বন্ধ আলোচনা নতুনভাবে শুরু হওয়া বলা যাবে না। ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় আলোচনা বন্ধ রয়েছে ২০১৫ সাল থেকে।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হওয়ার পর ইমরান খানকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি অভিনন্দন জানিয়ে এক চিঠি লিখেছিলেন। সেই চিঠিতে বলা হয়েছিল, সুসম্পর্ক রক্ষার একমাত্র উপায় গঠনমূলক আলোচনার মাধ্যমে শান্তি স্থাপন। সেই চিঠির উত্তরে ইমরান যে চিঠি লিখেছেন, তাতে দুই দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর মধ্যে বৈঠকের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। ইমরান এ কথাও লেখেন, পাকিস্তান সন্ত্রাসবাদ নিয়ে আলোচনায় প্রস্তুত। চিঠিতে তিনি বন্ধ থাকা সার্ক শীর্ষ সম্মেলন শুরু করার প্রস্তাবও দিয়েছেন। বলেছেন, এই উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী মোদির পাকিস্তানে আসা হবে। পাশাপাশি বন্ধ আলোচনাও শুরু করা যাবে।

এ বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে রবীশ কুমার বলেন, সন্ত্রাসবাদ নিয়ে ভারতের মনোভাব আগে যা ছিল, এখনো তাই রয়েছে। কোনো পরিবর্তন হয়নি। ভারত এখনো মনে করে, সন্ত্রাস ও আলোচনা একসঙ্গে চলতে পারে না। সার্ক শীর্ষ সম্মেলন ফের শুরু করার বিষয়ে তিনি বলেন, পরিস্থিতি এখনো উপযুক্ত নয়।