গত ০৯/০৫/২০১৮ ইং তারিখ রোজ বুধবার রাজশাহী বেলা ১২.০০ টায় রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ সদর দপ্তরের কনফারেন্স রুমে ‘ই-ট্রাফিক প্রসিকিউশন প্রসেস সংক্রান্তে আরএমপির সাথে আনুষ্ঠানিকভাবে ইউনাইটেড কর্মাশিয়াল ব্যাংক লিমিটেড(ইউসিবি) ও গ্রামীণ ফোন লিমিটেডের চুক্তিপত্র স্বাক্ষর অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আরএমপির পুলিশ কমিশনার জনাব মোঃ মাহাবুবর রহমান, পিপিএম। চুক্তিপত্রে আরএমপির পক্ষে স্বাক্ষর করেন ডিসি(সদর) তানভীর হায়দার চৌধুরী, ইউসিবি’র পক্ষে ইউসিবির এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডেন্ট এটিএম তাহমিদুজ্জামান ও গ্রামীণ ফোন লিমিটেডের পক্ষে গ্রামীণ ফোন রাজশাহী সার্কেলের আঞ্চলিক প্রধান তাজিব আহমেদ। এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন আরএমপি র অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার জনাব মোঃ সুজায়েত ইসলাম, ডিসি(বোয়ালিয়া)  জনাব মোঃ আমির জাফর, ডিসি(শাহমখদুম) জনাব মোহাম্মদ হেমায়েতুল ইসলাম, ডিসি(কাশিয়াডাঙ্গা)জনাব মোঃ জয়নুল আবেদীন, ডিসি(ট্রাফিক) জনাব অনির্বান চাকমা, এসি(ট্রাফিক) জনাব মোঃ ইফতে খায়ের আলম, ইউসিবির সহকারী ভাইস প্রেসিডেন্ট জনাব হাসান মোহাম্মদ জাহিদ, এরিয়া সেল্স ম্যানেজার জনাব মাহাবুব উদ্দিন, রাজশাহী ব্রাঞ্চ ম্যানেজার মোঃ আবুল হোসেন হাওলাদার, গ্রামীণ ফোন লিমিটেড রাজশাহীর টেকনোলজি হেড কাজী জিয়াউর রহমান, স্ট্রেটেজিক একাউন্ট ম্যানেজার হেলাল উদ্দিন আহমেদ, বিজনেস ডেভলেপ ম্যানেজার সিরাজ উদ্দিন।

মূলতঃ আরএমপির ট্রাফিক বিভাগ কর্তৃক দায়েরকৃত মামলাসমূহের জরিমানা/বিল আদায় পদ্ধতি সহজীকরণ, আধুনিকীকরণ ও ডিজিটাল পদ্ধতির প্রবর্তনের লক্ষ্য নিয়ে এই চুক্তিপত্র স্বাক্ষরিত  হয়। এর ফলে রাজশাহী মহনগরীর সাধারণ জনগণ সহজে ও দ্রুততার  সাথে ট্রাফিক প্রসিকিউশন সংক্রান্তে জরিমানাসমূহ ইলেকট্রনিক্স পদ্ধতিতে পরিশোধ করতে পারবেন। এক্ষেত্রে নগরীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ন পয়েন্টে পর্যায়ক্রমে  ইউসিবি ব্যাংকের এজেন্ট পয়েন্ট স্থাপন করা হবে। রাজশাহী মহানগরীতে শীঘ্রই এই পদ্ধতির বাস্তব প্রয়োগ শুরু হবে বলে উপস্থিত সকলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। পুলিশ কমিশনার বলেন ই-ট্রাফিক প্রসিকিউশন প্রসেস চালু হলে আরএমপির সেবার মান আরও বৃদ্ধি পাবে এবং জনগণ তাদের সুবিধাজনক এজেন্ট পয়েন্টে ট্রাফিক প্রসিকিউশন সংক্রান্ত জরিমানা/ বিল পরিশোধ করতে পারবেন।